জন্ম নিবন্ধন আবেদন ফরম ডাউনলোড PDF

আপনি যদি জন্ম নিবন্ধন সনদের জন্য নতুনভাবে আবেদন করতে চান তাহলে এটার আবেদন ফরম পিডিএফ ফাইল আকারে ডাউনলোড করতে পারবেন। যদিও জন্ম নিবন্ধন সনদের প্রত্যেকটি কাজ বর্তমান সময়ে ওয়েবসাইটের মাধ্যমে পরিচালনা করা হচ্ছে তারপরেও কি কি তথ্য নিয়ে এটি তৈরি করা হয় তা পিডিএফ ফাইলে থাকা ঘর দেখে বুঝতে পারবেন।

জন্ম নিবন্ধন সনদ প্রত্যেকের জন্য গুরুত্বপূর্ণ এবং আপনি যেহেতু বাংলাদেশের জন্মগ্রহণ করেছেন সেহেতু আপনাকে জন্ম নিবন্ধন সনদের তথ্য সংগ্রহ করে রাখতে হবে। কারণ জন্ম নিবন্ধন সনদের উপরে নির্ভর করে আপনি এনআইডি কার্ড তৈরি করতে পারবেন এবং অন্যান্য গুরুত্বপূর্ণ কাজ সম্পন্ন করতে পারবেন। নিচে আপনাদের জন্য জন্ম নিবন্ধন সনদের আবেদন ফরমের পিডিএফ ফাইল দেওয়া হল।

জন্ম নিবন্ধন সনদের প্রত্যেকটি কাজ আমাদের ওয়েবসাইট এর বিভিন্ন পোস্টে আলোচনা করা হয়েছে এবং বুঝিয়ে দেওয়া হয়েছে। পরিবারের কোন নতুন সদস্য জন্মগ্রহণ করলে তাকে কিভাবে জন্ম নিবন্ধন সনদের জন্য পরিবারের ব্যক্তির আবেদন করে দিবেন সে বিষয়ে সঠিক ধারণা প্রদান করা হয়েছে। তাই আপনারা যখন জন্ম নিবন্ধন সনদের নতুন করার জন্য আবেদন করবেন তখন অবশ্যই আমাদের ওয়েবসাইটের দেওয়া বিস্তারিত পোস্ট পড়ে নিবেন।

এতে করে আপনারা নিজেদের সঠিক তথ্য প্রদান করার ভিত্তিতে সঠিকভাবে জন্ম নিবন্ধন তৈরি করতে পারবেন। তবে অল্প কিছুদিন আগেও জন্ম নিবন্ধন সনদ তৈরি করার ক্ষেত্রে পিতা মাতার ডিজিটাল জন্ম নিবন্ধন সনদের যে বাধ্যবাধকতা ছিল তা উঠিয়ে নেওয়া হয়েছে বলে অনেকে এখন এই ভোগান্তি থেকে মুক্তি পেয়েছে।

২০০০ সালের পরে যে সকল শিশু জন্মগ্রহণ করেছে তাদের জন্ম নিবন্ধন সনদ তৈরি করার ক্ষেত্রে পিতা-মাতার জন্ম নিবন্ধন সনদ লাগছে না। তবে আপনি যখন জন্ম নিবন্ধন সৈন্যদের আবেদনের ফরম পিডিএফ ফাইল আকারে ডাউনলোড করতে এসেছেন তখন আপনাকে বলব যে এখানে কোন কোন তথ্য লাগতে পারে। যার জন্য জন্ম নিবন্ধন সনদ তৈরি করবেন তার বাংলা নাম এবং ইংরেজি নাম প্রদান করতে হবে। এখানে নাম নির্ধারণের ক্ষেত্রে এমন ভাবে নির্ধারণ করুন যাতে পরবর্তীতে সংশোধনের কোন প্রয়োজন না হয়। এরপরে শিশুটি পরিবারের কততম সন্তান এবং কোন লিঙ্গের সেগুলো উল্লেখ করে তার জাতীয়তা কি সেটা উল্লেখ করুন।

পরবর্তী পেজে গিয়ে পিতা এবং মাতার তথ্য একেবারে নির্ভুল হয়ে প্রদান করতে হবে এবং তাদের সঙ্গে যোগাযোগের নাম্বার উল্লেখ করতে হবে। পরবর্তী পেজে যাবেন এবং সেখানে ঠিকানা সংক্রান্ত তথ্য এমন ভাবে প্রদান করবেন যেন সেটা স্থায়ী ঠিকানা এবং বর্তমান ঠিকানার সঙ্গে হুবহু মিল থাকে। যদি কারো স্থায়ী ঠিকানা এবং বর্তমান ঠিকানা আলাদা হয়ে থাকে তাহলে সেটা আপনারা আলাদাভাবে উল্লেখ করতে পারবেন।

এখন পরবর্তী পেজে গিয়ে এই আবেদনপত্র কে সম্পন্ন করছেন তার তথ্য প্রদান করতে হবে। অর্থাৎ যার জন্য জন্ম নিবন্ধন সনদ তৈরি করা হচ্ছে তার সঙ্গে আবেদনকারীর সম্পর্ক কি এবং আবেদনকারীর যোগাযোগের নাম্বার প্রদান করা লাগবে। এভাবে জন্ম নিবন্ধন সনদ তৈরি করতে পারবেন এবং এর সঙ্গে প্রয়োজনীয় কিছু কাগজপত্র জমা দিতে হবে। তাছাড়া বয়স অনুসরণ করে জন্ম নিবন্ধন সনদের আবেদন ফি প্রদান করলেই আপনাদেরকে জন্ম নিবন্ধন সনদ তৈরি করে দেয়া হবে।

Related Articles

4 Comments

  1. Bdris gov bd apps my projon my download option off other not possible my download option bdris gov bd please

Leave a Reply

Your email address will not be published.

Back to top button